জনবান্ধব ওসি শেখ মোঃ সোহেল রানার কর্মকান্ডে মুগ্ধ নগরকান্দা বাসী

প্রকাশিত: ৩:২২ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০২০ | আপডেট: ৩:২২:অপরাহ্ণ, জুলাই ১৫, ২০২০

শওকত আলী শরীফ ,ফরিদপুর প্রতিনিধি : ফরিদপুর জেলার নগরকান্দা থানার সুযোগ্য ও জনবান্ধব অফিসার ইনচার্জ শেখ মোঃ সোহেল রানার কর্মকান্ডে মুগ্ধ নগরকান্দা বাসী। তিনি ২৩-০৯-২০১৯ ইং তারিখে নগরকান্দা থানায় যোগদানের পর থেকেই নগরকান্দাকে মাদক-জুয়া ও দাঙ্গা মুক্ত নগরকান্দা গড়ে তোলার জন্য নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।
নগরকান্দা থানায় যোগদানের পর পরই থানা এলাকার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে গিয়ে শিক্ষার্থীদের সাথে মতবিনিময় করেছেন বিশেষ করে ইভটিজিং বন্ধে ছাত্র ছাত্রী অভিভাবক ও শিক্ষকদের করনীয় সম্পর্কে দিক নির্দেশনা দিয়েছেন। বিভিন্ন এলাকার মসজিদে মসজিদে গিয়ে জুম্মার নামাজ আদায় করেছেন মুসল্লীদেরকে জঙ্গিবাদ,বাল্যবিবাহ ,মাদক ও জুয়ার বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার আহব্বান জানিয়েছেন। বিভিন্ন বাজারে গিয়ে ব্যবসায়ী ও বনিক সমিতির নেতৃবৃন্দের সাথে মতবিনিময় বরেছেন । তিনি থানা এলাকার জন প্রতিনিধি ,মুক্তিযোদ্ধা শিক্ষক ,সাংবাদিক ,ওলামায়ে মাশায়েখদের সাথে মতবিনিময় করেছেন ।
দাঙ্গা মুক্ত নগরকান্দা গড়তে তার নেয়া নানা পদক্ষেপ নগরকান্দার বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষের কাছে খুবই প্রশংসিত হয়েছে। তিনি এলাকায় এলাকায় গিয়ে বিবাদমান পক্ষগুলোকে নিয়ে আইনশৃক্ষলা মিটিং করেছেন। সেখানে উধর্¦তন পুলিশ কর্মকর্তাদের উপস্থিতিতে বিবাদমান উভয় গ্রুপই তাদের ঢাল সড়কি টেটা বল্লম সহ নানা প্রকার দেশীয় অস্ত্র পুলিশের কাছে জমা দিয়েছেন। ওসি শেখ মোঃ সোহেল রানা নগরকান্দা থানায় যোগদানের পর দাঙ্গা আগের চেয়ে অনেকটাই কমে এসেছে ।
যে কোন মানুষ সমস্যায় পড়ে ওসি সোহেল রানার কাছে আসলে তিনি মনযোগ সহকারে হাসিমুখে তাদের সমস্যার কথা শোনেন। মানুষের সমস্যার কথা শোনা এবং সমাধান করা তার নিত্য দিনের রুটিনে পরিনত হয়েছে । পুলিশ সম্পর্কে মানুষের যে ভুল ধারনা ছিল ওসি শেখ মোঃ সোহেল রানার কর্মকান্ডে নগরকান্দা বাসীর সেই ধারনার পরিবর্তন হয়েছে। তিনি তার কর্মকান্ডের মাধ্যমে নগরকান্দা বাসীর কাছে মানবিক, বিনয়ী ,সৎ মেধাবী সুন্দর মনের অধিকারী একজন পুলিশ কর্মকর্তা হিসেবে নিজেকে তুলে ধরতে সক্ষম হয়েছেন। করোনাকালীন সময়ে তিনি জীবন বাজি রেখে নগরকান্দা বাসীর জন্য কাজ করে চলেছেন । নগরকান্দা থানার ওসি তদন্ত সহ বেশ কয়েকজন করোনায় আক্রান্ত হলেও তিনি ও নগরকান্দা থানার অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা করোনা যোদ্ধা হিসেবে তাদের দায়িত্ব যথাযথভাবে পালন করে চলেছেন। স্থানীয় সাংবাদিকরা বলেন, এমন জনবান্ধব অফিসার ইনচার্জ ইতিপুর্বে এই থানায় খুব কমই এসেছেন। অসহায়দের ক্ষেত্রে যেমন মানবিক দয়ালু ঠিক তেমনই অপরাধীদের ক্ষেত্রে কঠোর। সন্ত্রাসী,মাদক ব্যবসায়ী দাঙ্গাবাজ, চোর ডাকাত দের কাছে এক আতংকের নাম ওসি সোহেল রানা।
নগরকান্দা থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ মোঃ সোহেল রানা বলেন, মানুষ শখ করে থানায় আসে না, বিপদে পড়েই থানায় আসে তাই তাদের সমস্যার কথা শুনি সমাধানের চেষ্টা করি। মাদক ,জুয়া, ইভটিজিং ও দাঙ্গা মুক্ত নগরকান্দা গড়তে নগরকান্দার সকল শ্রেনী পেশার মানুষের সহযোগিতা চাই ।