করোনা মহামারিতে নোয়াখালীর মানুষের পাশে ব্র্যাক

প্রকাশিত: ১০:১৬ অপরাহ্ণ, জুন ২৬, ২০২০ | আপডেট: ১০:১৬:অপরাহ্ণ, জুন ২৬, ২০২০

নিজস্ব সংবাদদাতা, নোয়াখালী।করোনা পরিস্থিতিতে নোয়াখালীর সাধারণ মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে নানাবিধ সচেতনতামূলক কর্মকাণ্ড পালনে ইতিবাচক ভূমিকা পালন করছে বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা ব্র্যাক। এখানকার মানুষের মাঝে আর্থিক ও খাদ্য সহায়তা দিয়েও পাশে দাঁড়িয়েছে সংস্থাটি।

ব্র্যাক নোয়াখালী জেলায় করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে, থানা ও উপজেলায়, হাটবাজারে লিফলেট বিতরণ, বাজার ও জনবহুল স্থানে জনসাধারণের হাত ধোয়ার জন্য পানির ড্রাম স্থাপন, সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার স্বার্থে বিভিন্ন দোকানের সামনে বৃত্ত অংকন, পাড়ায় মহল্লার দেওয়ালে দেয়ালে সচেতনতামূলক স্টিকার লাগানোসহ সমগ্র জেলায় সপ্তাহব্যাপী মাইকিং করা হয়।

এ ছাড়াও, সাবান, টয়লেট ক্লিনার, মাস্ক ও স্যানেটারি ন্যাপকিনও বিতরণ করেছে ব্র্যাক।

ব্র্যাক আঞ্চলিক কর্মকাণ্ডে করোনা প্রাদুর্ভাব শুরু হলে নোয়াখালী সদর শাখায় বিকাশের মাধ্যমে এবং হ্যান্ড ক্যাশে অতিদরিদ্র ৪৮০ টি পরিবারে ১ হাজার ৫০০ টাকা করে মোট ৭ লাখ ২০ হাজার টাকা প্রদান করা হয়। জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের তালিকাভুক্ত ১ হাজার ৩৪টি পরিবারে ব্র্যাক-পেপসিকোর খাদ্য সহায়তা হিসেবে দুই দফায় প্রত্যেক পরিবারে ৩২ কেজি চাল, চার কেজি ডাল, দুই কেজি লবণ, দুই কেজি চিনি, দুই কেজি সুজি, ২০ প্যাকেট বিস্কুট, চার কেজি আটা, চার লিটার সয়াবিন তেল দেওয়া হয়।গত ২৩ মার্চ থেকে ঋণ আদায় বন্ধ করে ক্ষুদ্র ও মাঝারি গ্রাহকদের বিকাশের মাধ্যমে প্রায় ৫০ লাখ টাকা সঞ্চয় ফেরত দেওয়া হয়।

গতকাল বৃহস্পতিবার ব্র্যাক-পেপসিকোর উদ্যোগে দ্বিতীয় দফা খাদ্য সহায়তা কার্যক্রমে উপস্থিত ছিলেন ব্র্যাক দাবি কর্মসূচির আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক আব্দুল কাদের, ব্র্যাক জেলা সমন্বয়কারী আক্তারুল ইসলাম, বিমল চন্দ্র পাল, আব্দুর রহিম, বিপ্লব সাহা ও ব্র্যাক সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচির জেলা ব্যবস্থাপক মো. সাইফুল ইসলাম প্রমুখ।