তদন্ত কমিটি স্বাধীন এবং নিরপেক্ষভাবে কাজ করছে: রাশেদ

প্রকাশিত: ৭:২৭ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২০ | আপডেট: ৭:২৭:পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২০

চম্পা। লন্ডন টাইমস নিউজ।তদন্ত কমিটি তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করছে। কমিটি স্বাধীনভাবে কাজ করছে। এক্ষেত্রে কেউ হস্তক্ষেপ করতে পারবে না। সেটা আমিও না। ছাত্র অধিকার পরিষদের ভারপ্রাপ্ত আহ্বায়ক মুহাম্মদ রাশেদ খান এসব কথা বলেছেন। সংগঠনটির আহ্বায়ক হাসান আল মামুনসহ কয়েকজনের বিরুদ্ধে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীর আনা ধর্ষণের অভিযোগের তদন্ত প্রসঙ্গে তিনি এসব কথা বলেন।
রাশেদ খান বলেন, যাদেরকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে তারা স্বাধীন এবং নিরপেক্ষভাবে প্রকৃত তথ্য তুলে ধরার চেষ্টা করবে। তদন্ত শেষে আপনারা জানতে পারবেন। নতুন রাজনৈতিক দল সম্পর্কে এই ছাত্রনেতা বলেন, নতুন রাজনৈতিক দল গঠনের জন্য আমরা বিভিন্ন মানুষের সঙ্গে কথা বলছি।অনেকেই যোগাযোগ করেছে। ৭০ ভাগ কাজ ইতোমধ্যে শেষ হয়েছে বলে গণমাধ্যমকে জানানো হয়েছে। একটি দল গঠন জটিল প্রক্রিয়া। আমরা সেভাবেই কাজ করছি। আশাকরি বাংলাদেশের মানুষের জন্য ভালো কিছু হবে। এবং এই দল মানুষের অধিকার আদায়ের জন্য কাজ করবে।
ছাত্রলীগ কতৃক নুরুল হক নুর, হাসান আল মামুন ও তার অনুসারীদেরকে ক্যাম্পাসে অবাঞ্ছিত ঘোষণা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ইতোমধ্যে অসংখ্যবার এ ধরনের বক্তব্য দেয়া হয়েছে। এটা একটি রাজনৈতিক বক্তব্য। যেটা বিভিন্ন সময়ে তারা (ছাত্রলীগ) দিয়ে থাকেন। এর আগে আমাদেরকে রিমান্ডে নিয়েছে। জেলে দিয়েছে। ডাকসুতে হামলা করেছে। ডাকসুতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিত দাসের নেতৃত্বে আমাদের ওপর হামলা হয়। এবং এটা মূলত ভারতের পৃষ্ঠপোষকতায় আমাদের ওপর হামলা করে। ভারতের বিরুদ্ধে আমরা কথা বলি। এবং ভারত কতৃক বাংলাদেশের রাজনীতিতে হস্তক্ষেপ, পিয়াজ ইত্যাদি বিষয়ে কথা বলার কারণে আমাদের কার্যক্রম থামিয়ে দেয়ার চেষ্টা করা হয়। বিভিন্ন হুমকি ধামকি দেয়া হয়। অবাঞ্চিত ঘোষণা তারই একটি বহি:প্রকাশ মাত্র।